করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের মধ্যে কোয়ারেন্টাইনে থেকেই রোজা পালন করবেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। শুক্রবার গণমাধ্যমকে এ কথা জানিয়েছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

তিনি জানান, ম্যাডাম এখন কোয়ারেন্টাইনেই আছেন। গোটা জাতি লকডাউনে আছে, চলাচল এবং সব কিছুই বন্ধ। উনি ব্যক্তিগত চিকিৎসকদের সঙ্গে পরামর্শ করে চিকিৎসাধীন আছেন এবং এভাবে কোয়ারেন্টাইনে থেকে তিনি রোজা পালন করবেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, বাসায় খালেদা জিয়ার সময় কাটছে নামাজ, কোরআন তেলাওয়াত, তাসবিহ পাঠ, বই পড়ে। এছাড়াও দুই পুত্রবধূ, নাতনিদের সঙ্গে টেলিফোনে মাঝে মধ্যে কথা বলেন তিনি।

গত ২৫ মার্চ সরকার নির্বাহী আদেশে ছয় মাস সাজা স্থগিত রেখে খালেদা জিয়াকে মুক্তি দেয়। দুই বছর কারাবাসের শেষের এক বছর তিনি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন।

মুক্তি পেয়ে হাসপাতাল থেকে গুলশানের বাসা ‘ফিরোজা’য় ওঠেন অসুস্থ খালেদা জিয়া। বাসার দোতলায় চিকিৎসকদের পরামর্শে তিনি কোয়ারেন্টাইনে আছেন।

লন্ডন থেকে বড় ছেলে তারেক রহমানের স্ত্রী ডা. জোবাইদা রহমান তার চিকিৎসার সবকিছু তত্ত্বাবধান করছেন। ৭৫ বছর বয়সী সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়া দীর্ঘদিন ধরে রিউমাটয়েড আর্থ্রারাইটিস, ডায়াবেটিসসহ বিভিন্ন রোগে ভুগছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *